1. mohsinlectu@gmail.com : mahsin :
  2. zahiruddin554@gmail.com : Md. Zahir Uddin : Md. Zahir Uddin
বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১১:৪১ পূর্বাহ্ন
বিশেষ বিজ্ঞপ্তিঃ
 কপোতাক্ষ নিউজে আপনাকে স্বাগতম! (খালি থাকা সাপেক্ষে) দেশের সকল বিভাগ, জেলা, উপজেলা, বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস সহ গুরুত্বপূর্ণ স্থানে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগ: ০১৭২৭-৫৬৭৯৭৬ ## ঝিকরগাছা উপজেলার ভিতর ইংরেজি টিউটর দিচ্ছি, যোগাযোগঃ ০১৯১৮ ৪০৮৮৬৩,mohsinlectu@gmail.com 

বেনাপোল দিয়ে দেশে ফিরলো ভারতে ৯ মাস জেল খাটা এক যুবতী

আশানুর রহমান আশা বেনাপোল
  • আপডেটঃ বুধবার, ১৪ জুলাই, ২০২১
  • ১৫৫ বার পড়া হয়েছে
ভারতে ৯ মাস জেল খেটে বেনাপোল হয়ে বিশেষ টাভেল পারমিটের মাধ্যেমে দেশে ফিরেছে অর্পিতা মিম (২৪) নামে এক যুবতী। মঙ্গলবার বেলা ১.১৫ টার সময় ভারতীয় ইমিগ্রেশন পুলিশ বেনাপোল ইমিগ্রেশন পুলিশের কাছে হস্তান্তর করেন। ফেরত আসা যুবতী খুলনার খান জাহান আলী থানার শিরোমনি গ্রামের আরিফ মোল্যার মেয়ে।ফেরত আসা যুবতী মিম জানায় সে বিগত ৩ বছর আগে পাসপোর্ট বাদে ভালো কাজের আশায় দালালদের মাধ্যেমে ভারত যায়। এরপর সে দেশের গুজরাট প্রদেশে বাসা বাড়ি কাজ করার সময় পুলিশের কাছে আটক হয়। এরপর আদালতের মাধ্যেমে তাকে চিল্ড্রেন হোমস এন্ড গার্লস নামে একটি শেল্টার হোমে রাখা হয়। সেখানে ৯ মাস থাকার পর আজ দেশে ফিরেছি।
বেনাপোল ইমিগ্রেশন ওসি মুজিবর রহমান বলেন, ভালো কাজের আশায় সে দালাল এর মাধ্যেমে ভারত যায়। এরপর সেখানে পুলিশের কাছে অবৈধ প্রবেশের দায়ে আটক হয়। এরপর দীর্ঘ ৯ মাস জেল খাটার পর দুই দেশের উচ্চ পর্যায়ে যোগাযোগের মাধ্যেমে দেশে ফেরত আসে। ফেরত আসা যুবতীকে ইমিগ্রেশন এর কাজ শেষে বেনাপোল থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।
 যুবতীকে গ্রহন করতে আসা বেসরকারী এনজিও সংস্থা জাস্টিস ফর কেয়ার এর সমন্বয় কারী শাওলী সুলতানা বলেন, আপাতত তাকে বেনাপোল পোর্ট থানা ১৪ দিন প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে রাখবে। এরপর সেখান থেকে গ্রহন করে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।বেনাপোল পোর্ট থানা এস আই রফিকুল ইসলাম বলেন, ফেরত আসা যুবতীকে ১৪ দিন কোয়ারেন্টাইনে থাকতে হবে। এরপর তাকে বেসরকারী জাস্টিস ফর কেয়ার নামে একটি এনজিও গ্রহন করবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© ২০-২২ কপোতাক্ষ নিউজ । এই ওয়েবসাইটের কোনো কন্টেন্ট অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি

ডেভলপমেন্ট এন্ড মেইনটেন্যান্স: মোঃ জহির উদ্দীন