1. mohsinlectu@gmail.com : mahsin :
  2. zahiruddin554@gmail.com : Md. Zahir Uddin : Md. Zahir Uddin
সোমবার, ০৩ অক্টোবর ২০২২, ০৫:৩২ পূর্বাহ্ন
বিশেষ বিজ্ঞপ্তিঃ
 কপোতাক্ষ নিউজে আপনাকে স্বাগতম! (খালি থাকা সাপেক্ষে) দেশের সকল বিভাগ, জেলা, উপজেলা, বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস সহ গুরুত্বপূর্ণ স্থানে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগ: ০১৭২৭-৫৬৭৯৭৬ ## ঝিকরগাছা উপজেলার ভিতর ইংরেজি টিউটর দিচ্ছি, যোগাযোগঃ ০১৯১৮ ৪০৮৮৬৩,mohsinlectu@gmail.com 

স্বামীর রেখে যাওয়া টাকা আর তোলা হলোনা!

রিপোর্টার
  • আপডেটঃ বুধবার, ১৭ আগস্ট, ২০২২
  • ১৭৬ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব সংবাদদাতাঃ-ছেলের গুলিতে নিহত জেসমিন আকতার জাপা চট্টগ্রাম দক্ষিন জেলার সভাপতি ও পটিয়া পৌরসভার সাবেক মেয়র প্রয়াত শামসুল আলম মাষ্টারের স্ত্রী। তিন সন্তানের মধ্যে এক ছেলে ও এক মেয়েকে নিয়ে থাকতেন অস্ট্রেলিয়ায়। এর মধ্যে বড় ছেলে মঈনুদ্দিন মোঃ মাইনুল (৩০) থাকতেন দেশে। চট্টগ্রাম নগরে ছাত্রলীগের রাজনীতিতে জড়িত ছিল মাঈনুল। গত ১৩ জুলাই শামসুল আলম মাষ্টারের মৃত্যুর খবর শুনে ছেলে আশফাক উদ্দিন ও মেয়ে শাইলা শারমীন নিপাকে নিয়ে দেশে আসেন শামসুল আলম মাষ্টারের স্ত্রী জেসমিন আকতার।বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, বড় ছেলে মাঈনুল পিতার মৃত্যুর পর থেকেই পিতার সম্পত্তি ও ব্যাংকে রক্ষিত টাকা তার নিজের নামে করে নেওয়ার চেষ্টা চালিয়ে আসছিল। এ নিয়ে মা ও বোনের সাথে মাঈনুলের বেশ কয়েকবার বাকবিতন্ডা হয়। গতকাল (মঙ্গলবার) দুপুর সাড়ে ১২ টায় মাঈনুলের মা জেসমিন আকতার পটিয়া পৌরসদেরর ব্র্যাক ব্যাংক ও জনতা ব্যাংকে যান স্বামীর রেখে যাওয়া টাকা উত্তোলনের জন্য। জনতা ব্যাংকে জেসমিন আকতারের নামে নমিনী ছিল তিন লক্ষ টাকা। সে টাকা উত্তোলনের জন্য প্রক্রিয়া করতে গিয়ে তার আবেদন, ছবি ও এনআইডি কার্ড প্রয়োজন ছিল। ছবি ও এনআইডি কার্ড আনতে দুপুর ১ টার দিকে মেয়ে নিপাকে নিয়ে নিজ ঘরে যায় মা জেসমিন। ঘরে ছিল ছেলে মাইনুল। টাকা উত্তোলনের বিষয়টি মাঈনুল অবগত হলে মায়ের সাথে তর্কে জড়িয়ে পড়ে। তার দাবি সব টাকা তার হাতেই দিতে হবে। মা তাকে বুঝাতে চেষ্টা করেন টাকা ভাগ করে সমবন্টন করে দেওয়া হবে। মায়ের এ প্রস্তাব কিছুতেই মানছিলনা মাঈনুল। তর্কের একপর্যায়ে মাকে অস্ত্র বের করে মাথায় গুলি করে। এতে লুটিয়ে পড়েন হতভাগিনী মা। কুলাঙ্গার পুত্রের হাতে প্রাণ দিতে হলো গর্ভধারিনী মাকে। এনআইডি কার্ড ও ছবি নিয়ে ব্যাংকে যাওয়ার কথা ছিল জেসমিন আকতারের, কিন্তু তার আর ব্যাংকে যাওয়া হলো না। উত্তোলন করতে পারলনা স্বামীর রেখে যাওয়া টাকা। এ ঘটনার পর থেকেই পটিয়ার সর্বত্র শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© ২০-২২ কপোতাক্ষ নিউজ । এই ওয়েবসাইটের কোনো কন্টেন্ট অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি

ডেভলপমেন্ট এন্ড মেইনটেন্যান্স: মোঃ জহির উদ্দীন