1. mohsinlectu@gmail.com : mahsin :
  2. zahiruddin554@gmail.com : Md. Zahir Uddin : Md. Zahir Uddin
মঙ্গলবার, ২৮ জুন ২০২২, ০৬:২৫ পূর্বাহ্ন
বিশেষ বিজ্ঞপ্তিঃ
 কপোতাক্ষ নিউজে আপনাকে স্বাগতম! (খালি থাকা সাপেক্ষে) দেশের সকল বিভাগ, জেলা, উপজেলা, বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাস সহ গুরুত্বপূর্ণ স্থানে প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে। যোগাযোগ: ০১৭২৭-৫৬৭৯৭৬

মোংলা পোর্ট পৌরসভার পক্ষে এসিল্যান্ড ও ওসিকে বিদায় সংবর্ধনা প্রদান

মোঃএরশাদ হোসেন রনি,মোংলাঃ
  • আপডেটঃ বুধবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০২১
  • ১১৬ বার পড়া হয়েছে

মোংলা উপজেলার সহকারি কমিশনার (ভূমি) নয়ন কুমার রাজবংশী ও থানার অফিসার ইনচার্জ ইকবাল বাহার চৌধুরীকে মোংলা পোর্ট পৌরসভার পক্ষ থেকে বিদায় সংবর্ধনা ও ক্রেষ্ট প্রদান করা হয়েছে।

বুধবার (১ সেপ্টেম্বর) দুপুর সাড়ে ১২ টায় পৌরসভার সম্মেলন কক্ষে উপজেলার গুরুত্বপূর্ণ দুই কর্মকর্তাকে বিদায় সংবর্ধনা জানানো হয়। পৌরসভার সচিব অমল কৃষ্ণ রায়ের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সংবর্ধনা সভায় উপজেলার আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ ও করোনার সংক্রমণরোধ, জনগনের কাঙ্খিত সেবা নিশ্চিত করণ ও দুর্ভোগ লাঘবে সহকারি কমিশনার (ভূমি) নয়ন কুমার রাজবংশী ও অফিসার ইনচার্জ ইকবাল বাহার চৌধুরীর অবদান তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন পৌর মেয়র বীরমুক্তিযোদ্ধা শেখ আব্দুর রহমান।

সংবর্ধনা সভায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কমলেশ মজুমদার, সিনিয়র এএসপি মোংলা সার্কেল আসিফ ইকবাল, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মো. ইব্রাহিম হোসেন, বেসরকারিভাবে নির্বাচিত মিঠাখালী ইউপি চেয়ারম্যান বাবু উৎপল মন্ডল, প্যানেল মেয়র এস এম কবির হোসেন, পৌর কাউন্সিলর মো. শরিফুল ইসলাম, মো. বাহাদুর মিয়া, জি এম আলামিন, সরোয়ার হোসেন, মজনু গাজী, হুমায়ুন হামিদ নাসির, জাহানার হোসেন চানু, জোহরা বেগম, শিউলী আকন, পৌরসভার কর্মকর্তা নিজাম উদ্দিন বাহাদুর, স্বাস্থ্য সহকারি এস এম বাদল, ফাহিম হাসান অন্তর, এরশাদ হোসেন রনি, শেখ রনিসহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রোনিক মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

সংবর্ধনা সভায় সহকারি কমিশনার (ভূমি)নয়ন কুমার রাজবংশী বলেন,
যতদিন আপনাদের সাথে ছিলাম ততদিন সততার সাথে দায়িত্ব পালন করেছি। কখনো অন্যায়ের সাথে আপোষ করিনি।মোংলায় করোনার সংক্রমণরোধে সরকারি নির্দেশনা মেনে কাজ করেছি। নিজেও করোনায় আক্রান্ত হয়েছি। পেশাগত কাজে আপনাদের অনেক সহযোগিতা পেয়েছি।

অফিসার ইনচার্জ ইকবাল বাহার চৌধুরী বলেন, অফিসার ইনচার্জ হিসেবে দীর্ঘ ৪ বছর ২১ দিন আপনাদের মাঝে থেকে আপনাদের দুঃখ-সুখের কথা শুনেছি, আইনের আলোকে আপনাদের সমস্যা সমাধানের সর্বাত্মক চেষ্টা করেছি। আইন প্রয়োগের ক্ষেত্রে কখনো কখনো আমাকে কঠোর হতে হয়েছে যেটা শুধুমাত্র আমার পেশাদারিত্বের কারনে, কোন ব্যক্তিগত আক্রোশের বশে নয়।আমার নিজের অজান্তে আমার ব্যবহারে যদি আপনারা কেউ মনে কষ্ট পান তাহলে আমাকে ক্ষমা করবেন। আপনারা আমাকে অনেক ভালোবাসা দিয়েছেন ও সহযোগীতা করেছেন। আপনাদের প্রতি আমি চির কৃতজ্ঞ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো সংবাদ
© ২০-২২ কপোতাক্ষ নিউজ । এই ওয়েবসাইটের কোনো কন্টেন্ট অনুমতি ছাড়া ব্যবহার বেআইনি

ডেভলপমেন্ট এন্ড মেইনটেন্যান্স: মোঃ জহির উদ্দীন